স্বপনের ইউরোপে পাড়ি জমানোর আশায় ভূমধ্যসাগরে মারা যাচ্ছেন অভিবাসন প্রত্যাসীরা।

প্রকাশিত: ১২:৫৩ অপরাহ্ণ, মে ১৬, ২০২০

অনলাইন আন্তর্জাতিক: স্বপনের ইউরোপে পাড়ি জমানোর আশায় ভূমধ্যসাগরে মারা যাচ্ছেন অভিবাসন প্রত্যাসীরা।

ভূমধ্যসাগরে সবার চোখের আড়ালেই মারা যাচ্ছেন অভিবাসন প্রত্যাসীরা। কিন্তু তাদের রক্ষায় কোনও মানবিক সহয়তাকারী জাহাজ কাজ করছে না। এএফপি ও ফ্রান্স ২৪ এর প্রতিবেদনে এই তথ্য পাওয়া গেছে।

করোনাভাইরাসের কারণে সারা বিশ্বের বন্দর বন্ধ। কিন্তু এখনও কাতারে কাতারে অভিবাসনপ্রত্যাসীরা জলপথে ইউরোপ প্রবেশ করছেন।

সাম্প্রতিক সপ্তাহগুলোতে বেশ ভালো সংখ্যায় অভিবাসী ইউরোপ পৌঁছাতে পেরেছেন। গত সপ্তাহে ইতালিতে পৌঁছান ৭৯জন। করোনা প্রাদুর্ভাবের আগে থেকেই দেশটি অভিবাসীদের আসতে দেবার বিষয়ে কঠিন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছিলো।

আন্তর্জাতিক সংস্থা ও এনজিওগুলো বলছে, সামনের দিনগুলোতে ভয়াবহ পরিস্থিতি অপেক্ষা করছে।

ইউএনএইচসিআরের বিশেষ দূত ভিনসেন্ট কখেটেল বলেন, ‘কোনও দেশ অভিবাসীদের আশ্রয় দিচ্ছে না সংক্রমণের ভয়ে। সমুদ্রে কোনও সাহায্যকারী জাহাজও নেই। প্রায় নি:শব্দে নৌকার উপরেই মারা যাচ্ছেন অভিবাসন প্রত্যাসীদের অনেকে। সাগরে ফেলে দেয়ায় তাদের লাশও পাওয়া যাচ্ছে না।’

এপ্রিল থেকেই সম্পূর্ণভাবে নিজেদের বন্দর বন্ধ করে দিয়েছে ইতালি ও মাল্টা। নিজেদের সমুদ্রসীমায় কোনও অনাকাঙ্খিত জলযান ঠেকাতে সাগরে টহলও বাড়িয়েছে দেশ দুইটি।